স্বাধীনতা পদক পাচ্ছেন ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ  চলার স্বাধীনতায় সাইক্লিং  সেনা প্রত্যাহার নিয়ে ট্রাম্পের বিলম্বিত বোধোদয়!  অতিবৃষ্টিতে মাথায় হাত শরীয়তপুরের আলু চাষিদের  এমপি বাসন্তীকে নিয়ে উত্তপ্ত রামগড়!  স্ত্রীকে পিটিয়ে পিটুনি খেলেন হিরো আলম !  নৌকার প্রার্থীর গাড়িতে অস্ত্র, চালকের জেল  শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নতুন মন্ত্রিসভা হবে সফল মন্ত্রিসভা : ইঞ্জি. মোশাররফ  মিরসরাইয়ে মোশাররফের প্রচারনায় দাপুটে আওয়ামীলীগ : অন্ত:কোন্দলে ধরাশায়ী বিএনপি  মিরসরাই প্রেস ক্লাবের সাধারণ সভা : যোগ দিলেন ৬ সাংবাদিক


লিডনিউজ | logo

৮ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ২২শে মার্চ, ২০১৯ ইং

পাকিস্তানকে হারিয়ে এশিয়া কাপ ফাইনালে বাংলাদেশ

পাকিস্তানকে হারিয়ে এশিয়া কাপ ফাইনালে বাংলাদেশ

লিড ক্রীড়া ডেক্স : ম্যাচটা ছিল বাঁচা-মরার। যেই হারবে, ফিরতে হবে বাড়ি। টানটান উত্তেজনার এই ম্যাচে পাকিস্তানকে ৩৭ রানে হারিয়ে এশিয়া কাপের ফাইনালে হাসতে হাসতে পা রাখলো টাইগাররা। আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর শিরোপা দখলের লড়াইয়ে ভারতের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ।

টস জিতে এদিন প্রথমে ব্যাটিংয়ে নামে মাশরাফি বাহিনী। টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় শুরুতেই হোচট খায় বাংলাদেশ। মাত্র ১২ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চরম বিপর্যয়ে পড়ে যায় বাংলাদেশ দল। সেই অবস্থা থেকে দলকে উত্তরণের চেষ্টা করেন মুশফিকুর রহিম ও মোহাম্মদ মিঠুন। এই জুটি থেকে আসে ১৪৪ রান। মাত্র ১ রানের জন্য সেঞ্চুরি হাতছাড়া হয় মিস্টার ডিপেন্ডেবলের। ৯৯ রানে ফিরে যান মুশফিক। বড় স্কোরের সম্ভাবনা জাগিয়েও ২৩৯ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ।সবগুলো ওভারও খেলতে পারেনি টাইগাররা। তবে আজ মুশফিক যদি ওই ৯৯ রানের ইনিংসটা না খেলতেন, বাংলাদেশের ২৩৯ রানের স্কোর পাওয়া সম্ভব ছিল না। এই স্কোর নিয়ে ফাইনালে যাওয়া নিয়ে শংকায় ছিল বাংলাদেশ দল। তবে দুর্দান্ত বোলিংয়ে সেই শংকা কাটিয়ে দেন বোলাররা। দলকে ফাইনালে তুলে আনেন।

পাকিস্তানের বোলাররা বাংলাদেশের টপঅর্ডার ধসিয়ে দিলেও কম যাননি মিরাজ-মোস্তাফিজরা। পাল্টা আঘাত হেনে ১৮ রানে তুলে নেয় পাকিস্তানের ৩ উইকেট। শুরুটা করেছিলেন মিরাজ। পাকিস্তানের ইনিংসের পঞ্চম বলেই ফখর জামানকে রুবেলের ক্যাচ বানান তিনি। মিডঅনে দুর্দান্ত ক্যাচ ধরেন রুবেল হোসেন। পরের ওভারে বাবর আজমকে এলবিডব্লুর ফাঁদে ফেলেন মোস্তাফিজ। ৩ বলে পাকিস্তানের দুই ব্যাটসম্যান মাঠ ছাড়েন।দলের বিপদ দেখে ওপরে ব্যাট করতে নেমেছিলেন সরফরাজ। সুবিধা করে উঠতে পারেননি।নিজের দ্বিতীয় ও ইনিংসের চতুর্থ ওভারে তাঁকে মুশফিকের ক্যাচ বানান মোস্তাফিজ।

১৮ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে তখন নাস্তানাবুদ অবস্থা পাকিস্তানের। সেখান থেকে ৬৭ রানের জুটি গড়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটভক্তদের মনে ভয় ধরান ইমাম ও শোয়েব মালিক। মাশরাফির দুর্দান্ত এক ক্যাচের শিকার হয়ে ফিরে যান শোয়েব (৩০)।ইমাম উল হক ফেরেন ৮৩ রান ঝুলিতে ভরে। বড় স্কোরের মধ্যে আসিফ আলী করেন ৩১ রান। সরফরাজ ফিরে যান ১০ রান করেন। অন্যদের মধ্যে শাহেন শাহ করেন ১৪ রান। বাকি কেউ দুই সংখ্যা পার করতে পারেননি।নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ২০২ রান সংগ্রহ করে পাকিস্তান। ফলে ৩৭ রানের জয় পায় বাংলাদেশ।


লিডনিউজ | logo

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    

সম্পাদক ও প্রকাশক:
ঠিকানা:
মুঠোফোন: ,ইমেইল:

© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত

ঢাকা অফিস: ১৯২ ফকিরাপুল, (৩য় তলা),
মতিঝিল, ঢাকা-১০০০।

rss goolge-plus twitter facebook
DEVELOPMENT: